বিশ্বের জানা-অজানা সব বিষয় নিয়ে আমাদের সাথে লিখতে আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন।

বলিউডের বেশিরভাগ সিনেমাগুলি রিমিক্স,রিমেক এবং বায়োপিক সম্পর্কে। ইদানীং আমরা একঘেয়ে কন্টেন্ট দেখছি, নিম্নলিখিত ওয়েব সিরিজ গুলি তাজা বাতাসের মতো।
এই ওয়েব সিরিজ গুলি অতিরিক্ত নাটকীয় বা ক্লিচড লাইনে পূর্ণ নয়। ওয়েব সিরিজ গুলি আমাদের আলাদা ধরনের কন্টেন্ট পরিবেশন করেছে যা আমরা সত্যি উপভোগ করেছি। এই শোগুলি কেবল আমাদের আশ্চর্য গল্পই দেয়নি,ওয়েব সিরিজ গুলি আমাদের কিছু বিশেষ অভিনেতাদের সাথে নতুন ভাবে পরিচয় করিয়ে দিয়েছে, যাঁরা অন্যথায় বলিউডের ‘নায়ক’ দের ছায়াতে ঢেকে ছিলেন।
image source: Twitter
ওয়েব সিরিজ গুলির কারনে যেসব গুণী অভিনেতা আবার লাইম লাইটে এসেছে তাদের একটি তালিকা দেওয়া হল।

 

কে কে মেনন (স্পেসাল ওপস)

image source: prime video
হায়দারের খুররাম মীর থেকে লাইফ ইন এ মেট্রোর রণজিৎ, সরকারের বিষ্ণু নাগরে থেকে গুলালের ডিউকী বান্না। কে ক্যান মেনন কখনও গড়পড়তা পারফর্ম করেননি। তিনি যে চরিত্রে অভিনয় করেছেন তাতে তিনি সবসময়ই উজ্জ্বল হয়েছেন।স্পেশাল ওপসে  হিম্মত সিংহ হিসাবে তিনি আবারও অভিনেতা হিসাবে নিজের দক্ষতা প্রমাণ করেছেন। এই ওয়েব সিরিজে তার অভিনয় ছিল অসধারন, খুব সাবলীল ভাবে নিজের চরিত্রটি ফুটিয়ে তুলেছেন।

 

বরুন সোবতি (আসুর)

image source : Voot
 ২০০৯ সালে স্টার প্লাসের শ্রদ্ধা সিরিজের মাধ্যমে তাঁর ক্যারিয়ার শুরু করেছিলেন বরুন সোবতি। তিনি দিল মিল গিয়েতেও নেগেটিভ রোলে অভিনয় করেছিলেন । তবে, ২০১০ সালেই তিনি সনি টিভির বাত হামারি পাক্কি হ্যায় এবং ইস পেয়ার কো কইয়া নাম দু  এর  প্রধান চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন। সোবতী এখন পর্যন্ত “মে অর মিঃ রাইটের” মতো রোমান্টিক ঘরানার চলচ্চিত্রের মাধ্যমে তার দক্ষতা প্রমাণ করেছেন। তিনি হটস্টার অরিজিনালস এর ওয়েব সিরিজ “তানহাইয়ান” এবং এএলটিবালাজির দ্য গ্রেট ইন্ডিয়ান ডিসফানশিয়াল ফ্যামিলির  একটি অংশে ছিলেন। তবে ভুট সিরিজ এর অসুরের অভিনয় দিয়ে তিনি খ্যাতি অর্জন করেছেন।এখন তিনি আগের চেয়ে আরও বেশি ভক্ত তৈরি করেছেন অসুরের অসাধারন অভিনয়ের মাধ্যমে।

জয়দীপ আহলাওয়াত (পাতাল লোক)

image source: Amazon Prime
জয়দীপ আহলাওয়াত অনুরাগ কাশ্যপের গ্যাংস অফ ওয়াসেপুরের শাহিদ খান চরিত্র এর মাধ্যমে বলিউডে আলোড়ন সৃষ্টি করেছিলেন। সেই থেকে তিনি রাজি, কমান্ডো এবং গাব্বার ইজ ব্যাক সিনেমার মাধ্যমে বেশ কয়েকটি দুর্দান্ত অভিনয় উপহার দিয়েছেন। শেষ পর্যন্ত তিনি পাতাল লোকের প্রধান চরিত্রে অভিনয় করার সুযোগ পেয়েছিলেন এবং তার পাওয়ারপ্যাকড অভিনয় দিয়ে দর্শকদের মন জয় করেছেন।

অতুল কুলকারনী (রাইকার কেস)

image source: Voot
অতুল কুলকার্নিকে নিয়ে নতুন করে কিছু বলার নাই। তার অভিনয় দক্ষতা আমরা সবাই জানি। তিনি এই ওয়েব সিরিজে যশবন্ত নায়েক রাইকার চরিত্রে অভিনয় করেছেন। চাঁদনী বার থেকে রং দে বাসন্তী, মারাঠি সিনেমার জনপ্রিয় অভিনেতা এই দশকে বেশ কয়েকটি দুর্দান্ত অভিনয় দর্শক মহলে পরিবেশন করেছেন।

অভিষেক ব্যানার্জী (পাতাল লোক)

image source: Amazon Prime
হয়তোবা আনেকেই জানেন না , অভিষেক ব্যানার্জি রং দে বাসন্তীতে প্রথম অভিনয় করেছিলেন। টিভিএফ পিচারস এবং মির্জাপুরের মতো শো থেকে শুরু করে স্ত্রী, বালা এবং ড্রিম গার্লের মতো সিনেমাগুলিতে ব্যানার্জি বিভিন্ন চরিত্রে অভিনয় করেছেন। মজার ব্যাপার হল প্রত্যেকটি  চরিত্র একে অপরের চেয়ে অনেকটাই আলদা।পাতাল লোকের হাতোড়া ত্যাগী চরিত্রে তাঁর দুর্দান্ত অভিনয় আবারও তাকে আলোচনায় এনেছে।

মোহিত রায়না (ভাহুকাল)

image source: Hotstar
দেব ও কা দেব মহাদেবের শিবের চরিত্রে অভিনয় থেকে ভাহুকালে্র নবীন শিখেরা পর্যন্ত রায়না অনেক দূর এগিয়ে এসেছেন।  উরি – দ্য সার্জিকাল স্ট্রাইক এবং ২১ শো সরফরোশ – সারাগড়ী ১৮৯৭ এবং কাফিরের মতো ওয়েব সিরিজগুলাতে অভিনয় করেছেন।তিনি আনেক দিন ধরে বলিউডে আছেন কিন্তু কোন সময় লাইম লাইটে আসেন নি,সম্প্রতিক তিনি বিভিন্ন ওয়েব সিরিজে অভিনয় করার মাধ্যমে দর্শক মহলে পরিচিতি লাভ করছেন এবং তার অভিনয়ের জন্য প্রশংসাও কুড়াছেন।

রঞ্জন রাজ (কোটা ফ্যাক্টারি)

Image Source: TVF
রঞ্জন রাজ ছিঁচোরে এবং বালার মতো সিনেমাতে অভিনয় করেছেন এবং ইম্যাটচার এবং হোস্টেল ড্যাজের মতো ওয়েব সিরিজে অভিনয় করেছেন, তবে তিনি কোটা ফ্যাক্টরিতে বাল্মুকুন্ড মীনা চরিত্রে অভিনয় করে দর্শকদের হৃদয়ে দাগ কেটে দিয়েছেন।পরবর্তী সময়ে তার কাছ দারুন কিছু আসবে সে ব্যাপারে আমরা নিশ্চিন্ত থাকতে পারি।

বিক্রান্ত মাসি (ক্রিমিনাল জাস্টিস)

image source: Hotstar
বালিকা বধুর মতো টিভি শো, লুটেরা, দিল ধাদাকনে দো ও মাসানের মতো সিনেমা এবং মির্জাপুরের মতো ওয়েব সিরিজে সকলকে মুগ্ধ করার পরে, বিক্রান্ত মাসি আবারও হটস্টারের ক্রিমিনাল জাস্টিসে অসাধারন অভিনয় করেছেন। তিনি আসলেই একজন দুর্দান্ত অভিনেতা,তার কাছ থেকে আমারা সুদূর ভবিষ্যতে আর আনেক দুর্দান্ত অভিনয় পাবো এইটা তার অভিনীত চরিত্রগুলো দেখলেই বোঝা যায়।

 

মাণভি গগ্রো (ফোর মোর শটস প্লিজ)

image source: prime video
শুভ মঙ্গল জায়েদা সাবধানে গুগল ত্রিপাঠির ভূমিকায় অভিনয় করার পরে, ম্যানভি গগ্রো ফোর মোর শটস প্লিজ সিজন ২-তে সিদ্ধি প্যাটেলের ভূমিকায় ফিরে আসেন, এই সিরিজ মিশ্র প্রত্রিকিয়া পেলেও ধনী পরিবারের একজন বাবলি মেয়ে হিসাবে তার অভিনয় সমস্ত দর্শক দ্বারা প্রশংসিত হয়েছিল।

 

ইসওয়াক সিং (পাতাল লোক)

image source: Amazon Prime
পাতাল লোকের বুদ্ধিমান,কিয়ুট পুলিশ চরিত্রে  ইসওয়াক সিং সোশ্যাল মিডিয়ায় মেয়েদের  নতুন ক্রাশে পরিণত হয়েছে। হয়তোবা কেও খেয়াল করে নি কিন্তু তিনি ভীর দি ওয়েডিংয় সিনেমাতে একটি ছোট চরিত্রে ছিলেন। তিনি দিপিকার বয়ফ্রেন্ড হিসাবে  ইমিতিয়াজ আলির তমাশায় একটি ক্যামিও চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন এবং রাঞ্ঝানা সিনেমাতেও ক্যামিও চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন। তবে পাতাল লোকে ইমরান আনসারী চরিত্রে অভিনয় করে বহুল ভাবে দর্শক মহলে পরিচিতি লাভ করেছেন।

 

নীল ভূপালম (রাইকার কেস)

image source: Voot
রাইকার কেসের  অন্যতম প্রধান চরিত্রে অভিনয় করেছেন এনএইচ ১০, লাস্ট স্টোরিজ এবং ২৪ খ্যাত নীল ভূপালম। রাইকার কেসে জন পরেরেরা চরিত্রে শক্তিশালি পারফরম্যান্স দিয়েছিলেন যা দর্শকদের কাছ থেকডে প্রশংসা অর্জন করেছিল। ফোর মোর শটস প্লিজ ওয়েব সিরিজেও তার অভিনয় দর্শকদের মন জয় করেছিল।

 

নীরজ মাধব (দ্যা ফামিলি ম্যান)

Image source: Twitter
মাধব মূলত মালায়ালাম সিনেমায় কাজ করেন। তার অন্যতম চলচ্চিত্র হচ্ছে দ্রিশ্যম, ১৯৮৩, সপ্তমাশ্রী তাসকরাহ, ওরু ভাদাক্কান সেলফি এবং ওরু মেক্সিকান অপরাথ।এই সিনেমাগুলাতে তার অভিনয় চমৎকার। মনোজ বাজপাই অভিনীত দ্য ফ্যামিলি ম্যানের মধ্যমে তিনি হিন্দি সিনেমার জগতে প্রবেশ করেছেন । সন্ত্রাসী চরিত্র  মুসা রহমানে অভিনয় করে তিনি হিন্দি ওয়েব সিরিজ জগতে সাড়া ফেলে দিয়েছেন।ভবিষ্যতে তাকে আমরা আরও আনেক চরিত্রে অভিনয় করতে দেখতে পাবো।

 

গুলশান দেওয়াইয়া  (আফসোস)

image source: prime video
গুলশান দেওয়াইয়া অনেকগুলি সিনেমা করেছেন তবে আফসোসে তার অভিনয় সমালোচক এবং ভক্তদের মধ্যে অন্যতম সেরা হিসাবে বিবেচিত হয়েছে । যদি মনে না থাকে তবে আমরা এর  আগেও তাকে শাইতানের মতো সিনেমাতে দেখেছি যার জন্য তিনি সেরা উদিয়মান অভিনেতা হিসাবে ফিল্ম ফেয়ার পুরষ্কার পেয়েছিলেন। হেট স্টোরি এবং হান্টারারের মত সিনেমাতে তার অভিনয়ের জন্য তিনি সমালোচক এবং ভক্তদের মাঝে সমাদৃত হয়েছিলেন।

 

নেহা শর্মা (ইল্লিগাল)

image source: Voot
ইমরান হাশমি অভিনীত ক্রুক সিনেমার মাধ্যমে বলিউডে নেহা শর্মা আত্মপ্রকাশ করেছিলেন। তিনি তেরি মেরি কাহানী, কেয়া সুপার কুল হৈং হাম, তুমি বিন ২ , ইয়ামলা পাগলা দিওয়ানা ২ এবং ইয়ংতিস্তানের মতো সিনেমাতে অভিনয় করেছেন। তবে ইল্লিগাল ওয়েব সিরিজে তার অভিনয় দর্শক এবং সমলোচক উভয় মহলে প্রশংসিত হয়েছে। আনেকের মতে এটাই তার কারিয়ারের অন্যতম সেরা পারফরম্যান্স।

 

চন্দন রায় (পঞ্চায়েত)

image source: prime video
পঞ্চায়েত ওয়েব সিরিজে  বিকাশের চরিত্রে অভিনয় করার জন্য ভক্তদের কাছ থেকে প্রশংসা কুড়িয়েছেন চন্দন রায়। এটি তার প্রথম প্রধান চরিত্র।তিনি ইতিমধ্যে চরিত্রের মাধ্যমে দর্শকদের হৃদয়ে প্রবেশ করেছেন।

 

আমি এইখানে কোন ওয়েব সিরিজে এর কাহিনি, ঘরনা এমনকি চরিত্রগুলার বিশ্লেষণ করি নি। খালি চরিত্রগুলাতে যারা অভিনয় করেছেন তাদের ব্যাপারে সংক্ষিপ্ত ভাবে লিখেছি। এর কারন হচ্ছে আমি চাই না যে আমার এই লিখা পরে আপানাদের এই ওয়েব সিরিজগুলা দেখার মজা নষ্ট হয়।

 

Reference: https://www.indiatimes.com/

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here